পা সতেজ রাখা

শীতের ঠাণ্ডা বাতাসে শুষ্কতার পরিমান বেড়ে যাওয়ায় আমাদের মুখ থেকে শুরু করে পুরা সরীরের ত্বক এমনকি মাথার ত্বক ও রুক্ষ হয়ে যায়। এমন কি পা ও রুক্ষ হয়ে পড়ে সঙ্গে পায়ের গোড়ালি ও ফাটার সমস্যা দেখা যায়। তাই শীতে পায়ের অতিরিক্ত যত্ন নেওয়া প্রয়োজন। এই শীতে পা কে কোমল ও মসৃণ করে তুলতে বাড়িতেই তৈরি করে নিন ফুট কেয়ার।

জেনে নিন পদ্ধতি সমুহঃ

পা এর যত্নে বেকিং সোডা স্ক্রাবঃ

পা ও পা এর নখ পরিষ্কার করতে অল্প পানিতে বেকিং সোডা মিশিয়ে পেস্ট করুন। এই পেস্ট নিয়ে নখ ও পুরো হাত-পায়ে ভালোমতো লাগিয়ে মালিশ করুন,এরপর হালকা গরম পানি দিয়ে ধুয়ে নিন। সোডা নখ চকচকে করে ও নখের পাশের মরা চামড়া উঠতে সাহায্য করে। পায়ের গোড়ালি নরম করে।
পায়ের গোড়ালি নমনীয় করতেঃ
এক টেবিল চামচ বেকিং সোডার সাথে এক টেবিল চামচ লেবুর রস ও সামান্য পানি একসঙ্গে মিশিয়ে প্যাক তৈরি করে নিন। এর পর পায়ের গোড়ালিতে লাগান। এবার নরম ব্রাশ দিয়ে ভালো করে ঘষুন। পায়ের ফাটা দাগ দূর ও পা মসৃণ হবে।

আরও জানুন লাউ(Bottle gourd) এর পুষ্টিগুণ এবং ডায়েট খাবার

 

কফি ও নারকেল তেলের স্ক্রাবঃ

 

কফি ও নারকেল তেলের মিশ্রনে আপনার পা যেমন কোমল হয়ে উঠবে তার সাথে আপনার পায়ে রক্ত সংবহন প্রক্রিয়াও বৃদ্ধি পাবে। এই স্ক্রাব তৈরি করতে এক কাপ গুঁড়ো কফি, এক টেবিলচামচ নারকেল তেল সঙ্গে দুই টেবিল চামচ মোটা চিনি দিয়ে একটি খসখসে মিশ্রণ তৈরি করে নিতে হবে। তারপর মিশ্রনটি পায়ে কিছুক্ষণ ম্যাসাজ করতে হবে। এরপর হাল্কা কুসুম পানি বা নর মাল পানি দিয়ে ধুয়ে ভালো করে পায়ের পানি মুছে নিয়ে ময়েশ্চারাইজ়ার লাগাতে হবে। তবে মনে রাখতে স্ক্রাব এর ক্ষেত্রে মিস্রন গুলি হাল্কা কুসুম পানি দিয়ে তোলার।

 

অ্যালোভেরা ও মধুর স্ক্রাবঃ

 

নিয়মিত পা কে রুক্ষতা থেকে বাচাতে পা আর্দ্র রাখতে এটি খুব উপকারী। অ্যালোভেরার দুই পাশের কাঁটাগুলো কেটে ফেলে দিয়ে ছিলে নিয়ে ব্লেন্ড করে নিন। তারপর একটি লেবুর সম্পূর্ণ রস বের করে এর সাথে মিশিয়ে নিন। পায়ের রঙ হালকা ও দাগ দূর করতে প্রতিদিন লাগিয়ে পনেরো মিনিট লাগিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এই মাস্কটি রোঁদে পোড়াভাবও দূর করে। মিশ্রণটি ফ্রিজে রাখলে এক সপ্তাহ পর্যন্ত ভালো থাকবে।তবে সেক্ষেত্রে এক টেবিলচামচ মধু ও অ্যালোভেরা জেল নিতে হবে। তাতে তিন ফোঁটা কর্পূর এসেনশিয়াল অয়েল এবং এক কাপ মতো বাথ সল্ট দিয়ে স্ক্রাব টি তৈরি করতে হবে। তারপর সেই মিশ্রন টি কে স্ক্রাব দিয়ে পা ভালো করে ম্যাসাজ করে শুকানো পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে। তারপর হাল্কা কুসুম পানি বা নরমাল পানি দিয়ে ধুয়ে নিতে হবে। পা থেকে পানি মুছে আপনার বডি তে স্যুইট করে ময়শ্চারাইজ়ার লাগিয়ে নিতে হবে। এছাড়াও অ্যালোভেরা মেছতা দূর করতে, রোদে পোড়াভাব মেছতা বলিরেখা  দূর করতে, শুষ্ক ত্বককে স্বাভাবিক করত্‌ ব্রণ দূর করতে,  ঠোঁটের যত্নে, চুলের যত্নে কমাতে আশ্চর্যভাবে উপকার করে।

 

পায়ের যত্নে চালের গুড়িঃ

 

আপনার ব্যারহার ক্রত ফেসয়াশ ১/২ চামুচ নিয়ে তাতে চালের গুড়ো মিশিয়ে নিন। এই বার মিশ্রনটিকে ম্যাসেজ করে নিন আপনার দুই পায়ে। মিশ্রন টি লাগানোর পর শুখানো পর্যন্ত অপেক্ষা করুন। শুখানোর পর হাল্কা কুসুম গরম পানি বা নরমাল পানির সাহায্যে পা ধুয়ে মুছে নিয়ে লোসন  লাগিয়ে নিন।

 

পা ফাটার সমস্যায় চালের গুড়িঃ

 

স্ক্রাবটি প্রতিদিন ব্যাবহার করে খুব দ্রুত পা ফাটার সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে পারেন।
উপকরণ: দুই থেকে তিন  চা চামচ চাল, অলিভ অয়েল, সাদা ভিনেগার ও মধু।
পদ্ধতি: প্রথমে চালের গুড় সঙ্গে ৩ চামচ ভিনেগার আর দুই  চামচ মধু দিয়ে ঘন পেস্ট তৈরি করুন।
একটি পাত্রে সামান্য গরম পানিতে দশ থেকে পনেরো মিনিট পা ভিজিয়ে রাখুন। এর পর ভেজা পায়ে ঘন পেস্টটি ভাল করে মালিশ করুন। মালিশ করার পর দশ মিনিট রেখে দিন। এর পর সামান্য উষ্ণ গরম পানিতে দিয়ে ধুয়ে ভাল করে পা মুছে নিন। এর পর সামান্য অলিভ অয়েল গরম করে নিয়ে পায়ে মালিশ করুন। সপ্তাহে দুই তিন বার এই প্যাক ব্যবহার করলে পা ফাটায় দ্রুত ভাল ফল পাবেন।

 

 

আরও জানুনঃ গ্রিন টি প্রস্তুত প্রক্রিয়া? গ্রিন টি খাওয়ার উপযুক্ত সময় , নিয়ম কানুন ও দৈনিক জীবনের সুবিধাদি?

 

আরও জানুনঃ শীত মৌসমে শরীরের যত্ন ও ছোটখাটো বিষয়াদি জেনে নিন।

 

অন্যান্য লিখাসমুহ যা আপনি জানেন না বা জানলে অবাক হবেনঃ

রূপচর্চার জন্য দারুণ কার্যকর লেবুর ফেসপ্যাক

একইসাথে রূপচর্চা রেসিপি ও রোগনিরাময়তে সেরা দুই সবজি কি আজই জেনে নিন

পালং শাক এর রূপচর্চার সাথে পুষ্টি গুনাবলি আজই জেনে নিন

চোখের পাপড়ি ঘন আকর্ষণীয় করা সহজ ঘরোয়া পদ্ধতি আসুন জেনে নেই

থানকুনি পাতায় রয়েছে সারাজীবন যৌবন ধরে রাখার বিশেষ ক্ষমতা

গ্রিন টি প্রস্তুত খাওয়ার উপযুক্ত সময় নিয়ম ও দৈনিক জীবনের সুবিধাদি

ফিট থাকতে গ্রিন টির সুবিধা অসুবিধা 

স্বাস্থ্যকর মুলা শাক রেসিপি ও অন্যান্য গুনাগুন

মাছ দিয়ে লাল শাক রান্না Mach Dia Lal Shak Recipi

উদয় সিং Dance Dewane নাচ সবাইকে হতবাক করে অশ্রুসিক্ত হন মাধুরী দীক্ষিত সহ অন্যান্য বিচারক